মুখোশ পরে শিক্ষকের বাড়িতে চুরি; পায়ে সালাম করে হাতখরচ দিলো চোর

0
126

ধারালো অস্ত্র নিয়ে মুখোশ পরেই চুরির জন্য এসেছিলো পুরো দল। বাড়িতে প্রবেশ করে স্বাভাবিক নিয়মেই টাকাপয়সা লুঠ করেছে তারা। কিন্তু বের হওয়ার আগে গৃহকর্তার হাতে আচমকাই তুলে দেয়া হলো হাতখরচার ২০০ টাকা।  যাওয়ার সময় পা ছুঁয়ে সালামও করে তারা। ঘটনাটি ঘটেছে ভারতের মুর্শিদাবাদে।

খবরে বলা হয়, মুর্শিদাবাদের ফারাক্কা ব্যারেজ আবাসনে হানা দেয় দুই চোর। আবাসনের বাসিন্দা হরিশচন্দ্র রায়ের বাড়িতে হানা দেয় তারা। হরিশচন্দ্র পেশায় ছিলেন একজন স্কুল শিক্ষক।

স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে, সোমবার রাতে খাওয়া-দাওয়া সেরে ভাইয়ের সাথে গল্প করছিলেন হরিশচন্দ্র। সেসময় বাড়ির দরজা খোলাই ছিল। সেই সুযোগে হাঁসুয়া এবং চাকু হাতে দুই চোর বাড়ির ভিতরে প্রবেশ করে। গলায় চাকু ঠেকিয়ে যা যা আছে বের করে দিতে বলে। সেসময় বাধা দেয়ার চেষ্টা করেন হরিশচন্দ্রের ভাই। কিন্তু তাকে ধরে নিয়ে গিয়ে শৌচালয়ে ঢুকিয়ে বাইরে থেকে দরজা বন্ধ করে দেয় চোরেরা। আত্মরক্ষায় আর বাধা দিতে যাননি হরিশচন্দ্র।

হরিশচন্দ্র বলেন, ওরা আমার আর ভাইয়ের গলার কাছে ধারালো অস্ত্র ধরেছিল। প্রাণের ভয়ে আমি নিজেই ওদের টাকা বের করে দিই। তারপরেও সারা ঘর লণ্ডভণ্ড করে আরও কিছু আছে কিনা খুঁজতে থাকে। আমাকে বারবার বলছিল যে, তারা আমায় চেনে। এত বছর শিক্ষকতা করেছি, চিনতে পারারই কথা। আমাকে সালাম করে যাওয়ার সময় আমি সামান্য কিছু টাকা চাই। তখন ২০০ টাকা ফেরত দিয়ে চলে যায়।

এ ঘটনায় ফারাক্কা থানায় অভিযোগ দায়ের করেছেন ভুক্তভোগী শিক্ষক। পুলিশ তাদেরকে আটক করতে তল্লাশি শুরু করেছে। চোরেরা ওই শিক্ষকের পায়ে হাত দিয়ে সালাম করায় ধারণা করা হচ্ছে চোরেরা তার ছাত্র হতে পারে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here