বিয়েতে দাওয়াত না দেওয়ায় হামলা, আহত ৩০ জন

0
91

বিয়ের আয়োজনে গ্রাম্য মাতব্বরকে দাওয়াত না করার ক্ষুব্ধ হয়ে করা হামলায় অন্তত ৩০ জন আহত হয়েছেন।ফরিদপুরের নগরকান্দায় এ ঘটনা ঘটেছে৷ এ সময় বেশ কয়েকটি ঘর-বাড়ি, দোকান ভাঙচুর এবং লুটপাটের ঘটনা ঘটে বলে জানা গেছে।

শুক্রবার (১৫ জুলাই) নগরকান্দা উপজেলার কোদালিয়া শহীদনগর ইউনিয়নের ছোট পাইককান্দি গ্রামে এমনটা ঘটেছে।

প্রত্যক্ষদর্শী ও পুলিশ সূত্রে জানা যায়, উপজেলার ছোট পাইককান্দি গ্রামের জাকির মোল্লার ছেলে জুনাইদ মোল্লা গত মঙ্গলবার (১২ জুলাই) বিয়ে করেন। এই বিয়ে ও বৌভাত অনুষ্ঠানে গ্রাম্য দলাদলির কারণে গ্রাম্য মাতবর সিরাজ মোল্লাকে দাওয়াত না দেয়ায় তিনি ক্ষিপ্ত হন। এরই জের ধরে শুক্রবার সকালে সিরাজ মোল্লা ও তার সমর্থকরা জুনাইদ মোল্লার ওপর হামলা চালায়।

হামলার পর আত্মরক্ষার জন্য জুনাইদ মোল্লা দৌড়ে সিরাজ মোল্লার প্রতিপক্ষ ইউসুফ মোল্লার বাড়িতে আশ্রয় নেন। এতে আরও ক্ষিপ্ত হয়ে সিরাজ মোল্লা ও তার সমর্থকরা ইউসুফ মোল্লার বাড়িঘর ভাঙচুর করেন। এরপর দুইপক্ষ দেশীয় অস্ত্র নিয়ে সংঘর্ষে লিপ্ত হন। এ সংঘর্ষে অন্তত ৩০ জন আহত হন। সংঘর্ষের সময় বেশ কয়েকটি বাড়িঘর ও দোকান ভাঙচুর এবং লুটপাটের ঘটনা ঘটে।

প্রাথমিকভাবে আহতদের নাম পরিচয় নিশ্চিত করে জানা যায়নি। এ ঘটনার পর থেকে এলাকায় উত্তেজনা বিরাজ করছে।আহতদের ফরিদপুরের বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল ও নগরকান্দা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে।

এ ব্যপারে কোদালিয়া শহীদনগর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান খন্দকার জাকির হোসেন নিলু ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, এলাকায় দলাদলি আছে। এক দলের লোক অন্য দলে যোগদান ও বিয়ের দাওয়াত নিয়ে মারামারির ঘটনা ঘটে। এতে প্রায় ২৫ থেকে ৩০ জন আহত হয়েছে বলে জানতে পেরেছি।

এ বিষয়ে নগরকান্দা থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) হাবিল হোসেন বলেন, খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। বর্তমানে এলাকার পরিস্থিতি স্বাভাবিক রয়েছে। আইনগত বিষয়টি প্রক্রিয়াধীন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here