স্পেশাল পিটিশনে জামিন পেলেন দীপ্ত টিভির মালিক কাজী জাহেদুল হাসান

0
73

ছয় বছর আগে দায়ের করা তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি (আইসিটি) আইনের মামলায় কাজী ফার্মস গ্রুপ ও বেসরকারি টেলিভিশন চ্যানেল দীপ্ত টিভির ব্যবস্থাপনা পরিচালক (এমডি) কাজী জাহেদুল হাসানকে কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দেওয়ার কিছুক্ষণ পর স্পেশাল পিটিশনের ওপর শুনানি করে তাকে জামিন দিয়েছে আদালত।

সোমবার চট্টগ্রাম সাইবার ট্রাইব্যুনালের বিচারক জহিরুল কবিরের আদালত এ আদেশ দেন। এসময় জাহেদুল হাসানের সঙ্গে কারাগারে পাঠানো অপর তিন আসামির জামিন আবেদন বিষয়ে শুনানির জন্য মঙ্গলবার দিন ধার্য করেছেন আদালত।

এর আগে সোমবার আদালতে আত্মসমর্পণ করে জামিন আবেদন করেন দীপ্ত টিভির ব্যবস্থাপনা পরিচালক (এমডি) কাজী জাহেদুল হাসান, কাজী গ্রুপের পরিচালক কাজী জাহিন হাসান, চিফ অপারেটিং অফিসার কাজী উরফি আহমেদ ও আনিসুর রহমান। শুনানি শেষে তাদের জামিন নামঞ্জুর করে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন আদালত। কিন্তু কিছুক্ষণ পর স্পেশাল পিটিশনের ওপর শুনানি করে কাজী জাহেদুল হাসানকে জামিন দেওয়া হয়।

সাইবার ট্রাইব্যুনালের পিপি অ্যাডভোকেট মেজবাহ উদ্দিন চৌধুরী বলেন, সকালে চার আসামিকে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দিয়েছিলেন আদালত। এদিন বিকেলে আসামিপক্ষ স্পেশাল পিটিশন দাখিল করে শুনানি করেন। শুনানি শেষে অসুস্থ ও বয়স্ক বিবেচনায় আসামি কাজী গ্রুপের ব্যবস্থাপনা পরিচালক কাজী জাহেদুল হাসানকে ১০ হাজার টাকার বন্ডে জামিন দিয়েছেন আদালত।

আদালত সূত্র জানিয়েছে, ২০১৬ সালের ১৬ ও ২২ মার্চ দীপ্ত টিভিতে তৎকালীন প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রী নুরুল ইসলাম বিএসসি ও তার ছেলে মুজিবর রহমানকে নিয়ে একটি সংবাদ প্রকাশ করা হয়। প্রচারিত সংবাদে তাদের সম্মানহানি হওয়ার অভিযোগ তুলে একই বছরের ৫ এপ্রিল তথ্যপ্রযুক্তি আইনের ৫৭ (২) ধারায় চকবাজার থানায় একটি মামলা দায়ের করা হয়। নুরুল ইসলামের মালিকানাধীন প্রতিষ্ঠান সানোয়ারা গ্রুপের ব্যবস্থাপক জাহাঙ্গীর আলম এই মামলাটি দায়ের করেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here