অপহরণ করে অশ্লীল ভিডিও ধারণ; ফাঁসের হুমকি দিয়ে চাঁদা দাবি

0
109

মোবাইল ফোনে অশ্লীল ভিডিও ধারণ করে হুমকি দেওয়া হয় সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে দেওয়ার। ঝালকাঠির এক প্রবাসীকে অপহরণের পর এই ভিডিও ধারণ করা হয় বলে জানিয়েছে স্বজনরা। অভিযোগ উঠেছে স্বজনদের কাছে পাঁচ লাখ টাকা চাঁদা দাবি করা হচ্ছে।

সোমবার(৫ সেপ্টেম্বর) সকালে ভুক্তভোগী সৌদি আরবপ্রবাসী আবদুল রব হাওলাদারের স্ত্রী রিনা বেগম ঝালকাঠি প্রেসক্লাবে সংবাদ সম্মেলন করে এসব তথ্য জানান। বর্তমানে তাঁর স্বামী সৌদি আরবে আছেন।

সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্যে প্রবাসীর স্ত্রী রিনা বেগম বলেন, তাঁর স্বামী ঝালকাঠির রাজাপুর উপজেলার ইন্দ্রপাশা গ্রামের আবদুল রব হাওলাদার দীর্ঘদিন ধরে সৌদি আরবে ব্যবসা করে আসছেন। তিনি (আবদুল রব) ২০২১ সালের ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে রাজাপুরের মঠবাড়ি ইউনিয়নের চেয়ারম্যান পদে প্রার্থী হন। এই সুবাদে স্থানীয় ফেসবুক ব্যবহারকারী অনেকের সঙ্গে তাঁর সখ্য গড়ে ওঠে। পরে তিনি প্রার্থিতা প্রত্যাহার করে সৌদি আরবে চলে যান।

ভুক্তভোগী পরিবার জানিয়েছে, গত ১৫ এপ্রিল সৌদি আরবে রব হাওলাদারকে অজ্ঞাতনামা ব্যক্তিরা তুলে নিয়ে পোশাক খুলে অশ্লীল ভিডিও ও ছবি মুঠোফোনে ধারণ করেন। দুই দিন আটকে রেখে তাঁকে ছেড়ে দেওয়া হয়। পরবর্তীতে এসব ভিডিও সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ছড়িয়ে দেওয়ার হুমকি দিয়ে তাঁদের কাছে ফোন করে বিভিন্ন সময় পাঁচ লাখ টাকা চাঁদা দাবি করে আসছে একটি চক্র। অপহরণকারীরা মুঠোফোনে বিভিন্ন রকমের ভয়ভীতি প্রদর্শন করছে।

প্রবাসী আবদুল রব হাওলাদারের স্ত্রী রিনা বেগম ঘটনায় রাজাপুর থানায় ও বরিশাল র‍্যাব-৮–এর কার্যালয়ের অভিযোগ দিয়েছেন। এ সংবাদ সম্মেলনের সময় প্রশাসনের ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষকে ভিডিও উদ্ধারের জন্য অনুরোধ জানিয়েছেন তিনি। এ সময় আরও উপস্থিত ছিলেন তাঁর বোন পারুল বেগম ও ভাগনে মো. সজিবুল ইসলাম।

এ বিষয়ে ঝালকাঠির রাজাপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) পুলক চন্দ্র রায় বলেন, এ ব্যাপারে তদন্ত করে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here